চট্টগ্রাম   বৃহস্পতিবার, ২৩ মে ২০২৪  

শিরোনাম

মিয়ানমার জান্তার বিরুদ্ধে ১১ জনকে নির্বিচারে হত্যার অভিযোগ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক    |    ০১:০৩ পিএম, ২০২১-১২-০৯

মিয়ানমার জান্তার বিরুদ্ধে ১১ জনকে নির্বিচারে হত্যার অভিযোগ

মিয়ানমারের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চলের সাগাইংয়ের একটি গ্রামে ১১ জনকে গুলি করে ও পুড়িয়ে হত্যাকাণ্ড চালানোর অভিযোগ উঠেছে দেশটির জান্তা সরকারের বিরুদ্ধে। মিয়ানমার সেনা সদস্যরা সেখানকার লোকজনকে গুলি করে ও তারপর পুড়িয়ে মারা চেষ্টা চালায়, এমন অভিযোগ করেন স্থানীয়রা। তাদের মধ্যে কেউ কেউ এখনও বেঁচে আছেন। স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) এ ঘটনা ঘটে। গ্রামবাসীরা রেডিও ফ্রি এশিয়াকে জানায়, নিহতরা ছিল খামারের শ্রমিক। যদিও একটি সংবাদ প্রতিবেদনে নিহতদের নাম দেওয়া হয়েছে। বলা হয়েছে যে বেশিরভাগই জান্তার বিরুদ্ধে লড়াই করা স্থানীয় পিপলস ডিফেন্স ফোর্স (পিডিএফ) মিলিশিয়ার সদস্য। ওই ঘটনার ভিডিও ফুটেজ প্রকাশ করেছে মিয়ানমার নাউসহ বেশ কিছু গণমাধ্যম। তবে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো বিষয়টি এখনও নিশ্চিত করতে পারেনি ভিডিও ফুটেজগুলো কতটা সত্য। গত ১ ফেব্রুয়ারি মিয়ানমারের সামরিক বাহিনী ক্ষমতা দখলের পর ওই এলাকায় জান্তা সরকারবিরোধী একটি মিলিশিয়া বাহিনী গড়ে তোলা হয়েছিল। এই বাহিনীর সঙ্গে নিরাপত্তা বাহিনীর এখনও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ হামলার বিষয়ে জানতে জান্তা সরকারের এক মুখপাত্রের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোনকল ধরেননি, বলে জানিয়েছে রয়টার্স। ওই এলাকায় কাজ করেন এমন এক স্বেচ্ছাসেবী ত্রাণকর্মী নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন, মঙ্গলবার মিয়ানমার সেনারা দন তাও গ্রামে প্রবেশ করেন। এরপর ১১টার দিকে হামলা চালানো হয়। তিনি বলেন, সেনারা যাকে সামনে পেয়েছেন, তাকেই হত্যা করেছেন। তবে তিনি নিশ্চিত করতে পারেননি, নিহতরা মিলিশিয়া সদস্য, নাকি সাধারণ মানুষ। এ ঘটনার একদিন আগে মিয়ানমারের ক্ষমতাচ্যুত বেসামরিক সরকারের নেত্রী অং সান সু চির সাজা কমিয়ে তার বিরুদ্ধে একটি মামলার রায়ে তাকে চার বছরের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। তার বিরুদ্ধে ১১টি অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে। এসব মামলা আদালতে বিচারাধীন। সোমবার (৬ ডিসেম্বর) তার প্রথম মামলার রায় ঘোষণা করা হয়। তার বিরুদ্ধে আনা সব মামলায় দোষী সাব্যস্ত হলে সু চিকে হয়তো যাবজ্জীবন কারাভোগ করতে হতে পারে।

রিটেলেড নিউজ

ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের জাতিসংঘের সদস্যপদ নিয়ে বৃহস্পতিবার নিরাপত্তা পরিষদে ভোটাভুটি

ফিলিস্তিন রাষ্ট্রের জাতিসংঘের সদস্যপদ নিয়ে বৃহস্পতিবার নিরাপত্তা পরিষদে ভোটাভুটি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :   জাতিসংঘ নিরাপত্তা পরিষদে জাতিসংঘের পূর্ণ সদস্য রাষ্ট্র হওয়ার জন্য ফিলিস্তিনিদের আবেদনের ও...বিস্তারিত


নাবিক আলীকে ফেরত চান তার মা

নাবিক আলীকে ফেরত চান তার মা

আমাদের ডেস্ক : : সদ্য বিবাহিত স্ত্রীকে রেখে দুমাস আগে বাংলাদেশি পতাকাবাহী জাহাজ এম ভি আবদুল্লাহর নাবিক হিসেবে জয়ে...বিস্তারিত


রমজানের প্রাক্কালে গাজায় যুদ্ধ আরো তীব্র হয়েছে

রমজানের প্রাক্কালে গাজায় যুদ্ধ আরো তীব্র হয়েছে

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরাইল ও হামাসের মধ্যে যুদ্ধ আরো তীব্র রূপ নিয়েছে।  এদিকে রমজানকে কেন্দ্...বিস্তারিত


গাজায় ‘জঘন্য অপরাধ’ বন্ধের আহ্বান সৌদি বাদশাহ’র

গাজায় ‘জঘন্য অপরাধ’ বন্ধের আহ্বান সৌদি বাদশাহ’র

আমাদের ডেস্ক : : সৌদি বাদশাহ সালমান গাজায় সংঘটিত জঘন্য অপরাধের অবসান ঘটাতে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের প্রতি আহ্বান ...বিস্তারিত


নিত্যপণ্যের সরবরাহ নিয়ে রাশিয়ার সঙ্গে সমঝোতা স্মারক সই

নিত্যপণ্যের সরবরাহ নিয়ে রাশিয়ার সঙ্গে সমঝোতা স্মারক সই

আমাদের ডেস্ক : : বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু বলেছেন, রাশিয়া বাংলাদেশের উন্নয়ন সহযোগী বন্ধুপ্রতীম রা...বিস্তারিত


রমজানের আগে গাজা যুদ্ধের তীব্রতার কারণে ত্রাণবাহী কার্গো নৌকা প্রস্তুত

রমজানের আগে গাজা যুদ্ধের তীব্রতার কারণে ত্রাণবাহী কার্গো নৌকা প্রস্তুত

আমাদের ডেস্ক : : যুদ্ধবিধ্বস্ত গাজায় ফিলিস্তিনিদের জন্য খাবার বোঝাই একটি কার্গো নৌকা সাইপ্রাস থেকে যাত্রার জন্...বিস্তারিত



সর্বপঠিত খবর

ক্যালিফোর্নিয়ায় আন্তর্জাতিক গাড়ি প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানে চট্টগ্রামের মেধাবী সন্তান প্রিয়ম চক্রবর্তীর যোগদান

ক্যালিফোর্নিয়ায় আন্তর্জাতিক গাড়ি প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠানে চট্টগ্রামের মেধাবী সন্তান প্রিয়ম চক্রবর্তীর যোগদান

আমাদের ডেস্ক : : ডেস্ক রিপোর্ট :: চট্টগ্রামস্থ  লোহাগাড়ার  কৃতি সন্তান প্রিয়ম চক্রবর্তী ক্যালিফোর্নিয়ায় ...বিস্তারিত


সদরের পি এম খালী ইউনিয়নের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী কেফায়ত উল্লাহর ঈদ শুভেচ্ছা

সদরের পি এম খালী ইউনিয়নের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী কেফায়ত উল্লাহর ঈদ শুভেচ্ছা

আমাদের ডেস্ক : : সদরের পি এম খালী ইউনিয়নের বর্তমান জনপ্রিয় চেয়ারম্যান আব্দুর রহিম মাস্টারের ভাগিনা পিএমখালী ব...বিস্তারিত



সর্বশেষ খবর